সাতক্ষীরার তালায় ২ জনের করোনা উপসর্গ সন্দেহে জনমনে আতঙ্ক

Wednesday, April 8th, 2020

 

ভবতোষ কুমার মন্ডল (সাতক্ষীরা প্রতিনিধি) সাতক্ষীরায়, তালার খলিষখালীতে করোনা সন্দেহে মঙ্গলবার (৭এপ্রিল) ২ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এই ঘটনায় খলিষখালীতে জনমনে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

সরজমিনে অনুসন্ধানে গিয়ে জানা যায়, খলিষখালী গ্রামের নিলাবতী হরি (৮৬) ও তার প্রতিবেশী দেবহাটা সরকারি হাসপাতালে কর্মরত সহকারী চিকিৎসক ডাঃ সুব্রত কুমার দে (৪৩) বেশ কয়েকদিন যাবত জ্বর, সর্দি, কাশিও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। ইতিমধ্যে এ নিয়ে জনমনে নানা গুজব ও প্রস্ন ছড়িয়ে পড়লে তারা নিজ উদ্যোগে সংক্লিষ্ট দপ্তরকে বিষয়টি জানান। অতঃপর চিকিৎসকগন ও সাস্থ্য কর্মীরা তাদের বাড়িতে এসে নমুনা তাদের সংগ্রহ করে নিয়ে যায়।

খলিষখালী ইউনিয়ন সাস্থ্য পরিদর্শক মোল্যা শহিদুল ইসলাম জানান,আমরা খবর পাওয়া মাত্র তাদের বাড়িতে গিয়ে তালা উপজেলার স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: রাজিব সরদারের সহযোগিতায় COVID-19 এর নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ে আসি এবং তা টেষ্ট করার জন্য পাঠিয়েছি। পরিশেষে তিনি বলেন,তারা দুই জন এখন হোম কোয়ারেন্টাইনে আছেন। এ ছাড়া ও সাস্থ্য কর্মীরা সবসময় আপনাদের পাশে আছে। এ সময় তিনি সকলকে আতঙ্কিত না হয়ে সচেতন হওয়ার পরামর্শ দেন।

বিষয়টা নিয়ে খলিষখালী ইউপি চেয়ারম্যান মোজাফফর রহমানের সাথে কথা বললে, তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, বিষয়টা আমি শুনেছি। আমি সাথে সাথে সাতক্ষীরা সিভিল সার্জনের সাথে এ বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছি। তবে এলাকার মানুষের মধ্যে বিষয়টি নিয়ে তীব্র আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে। আমি বাড়ি বাড়ি গিয়ে ত্রান সামগ্রীর পাশাপাশি জীবানুনাশক, সাবান, বিলিচং পাওডার, মাস্ক ও লিপলেট বিতরন করা সহ সারাদিন মাইকিং করে করোন সচেতনায় প্রচারনা চালাচ্ছি। বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া কাউকে বাড়ি থেকে বের না হওয়ার জন্য অনুরোধ করছি।