পানির দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত ও ভুতুরে বিদ্যুৎ বিল মরার উপর খাড়ার ঘা

Thursday, June 25th, 2020

আবুল আতা মামুন : পানির দাম ওয়াসা কর্তৃক ২৫% বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত ও গত ৩ মাসের একত্রিত ভুতুরে বিদ্যুৎ বিল করোনা মহামারির কারণে ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত সাধারণ নাগরিকরদের জন্য মরার উপর খাড়ার ঘা হিসেবে দেখা দিয়েছে বলে দাবি করেছেন বাংলাদেশ সাধারণ নাগরিক সমাজের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব এস. এম. রেজাউল করিম।

গতকাল ২৪ জুন ২০২০ বুধবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ দাবি করেন।

তিনি বলেন, “সাম্প্রতিক ওয়াসার ২৫% পানির দাম বৃদ্ধি অযৌক্তিক ও অনৈতিক। যদিও মহামান্য হাইকোর্ট মূল্য বৃদ্ধিতে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন। কিন্তু তারপর সাধারণ মানুষ আতঙ্কে আছেন। পানির মান বৃদ্ধি ও নিরবচ্ছিন্ন সরবরাহ ব্যবস্থা গড়ে না তুলে দফায় দফায় মূল্য বৃদ্ধি অনৈতিক। ভোক্তা অধিকার আইন ২০০৯ অনুসারে পানির মান উন্নত না করে বিল নেয়া একটি অপরাধ।”

তিনি আরো বলেন, “গত মাসের বিদ্যুৎ বিল একত্রে পরিশোধ করতে বলা হয়েছে। কিন্তু বিভিন্ন জায়গায় ভুতুরে বিদ্যুৎ বিল এসেছে। বাস্তবতার সাথে যার কোন মিল নেই। কিন্তু মানুষ কোন সমাধান পাচ্ছেন না। বিভিন্ন অফিস ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে বিদ্যুৎ ব্যবহার না করা হলেও পূর্বের চেয়ে বেশি বিল আসার অভিযোগ পাওয়া গেছে। যা খুবই দুঃখজনক।”

সাধারণ নাগরিক সমাজের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব বলেন, “আমরা সরকারের কাছে আহ্বান জানাবো পানির মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করা হোক। একই সাথে যাদের ভুতুরে বিল এসেছে তাদের সমস্যা জরুরি ভিত্তিতে সমাধান করা হোক।