নাগরিকের অসচেতনতার কারণে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লে লকডাউনে বাধ্য হবো পৌর মেয়র

Sunday, June 28th, 2020

জোবায়ের আহমদ, জেলা প্রতিনিধিঃ মৌলভীবাজার লকডাউন করার আগে জনসচেতনতা সৃষ্টি করার লক্ষে মৌলভীবাজার পৌরসভার পক্ষ থেকে ওয়ার্ড ভিত্তিক সচেতনতা কার্যক্রম সভা শুরু হয়েছে। ২৭ জুন শনিবার সকালে ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আসাদ হোসেন মক্কুর সভাপতিত্বে প্রাইমারি টিচাস ট্রেনিং ইন্সটিটিউট (পিটিআই) এ এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পৌর মেয়র ফজলুর রহমান বলেন, আমি পৌর এলাকা লকডাউন হউক চাইনা। কিন্তু যদি নাগরিকের অসচেতনতার কারণে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে যায়। তাহলে বাধ্য হবো লকডাউন ঘোষণা করতে।

তিনি বলেন, এপযন্ত মৌলভীবাজার জেলা শহরে যারা আক্রান্ত হয়েছে তাঁদের তালিকা আমাদের কাছে রয়েছে। পৌরসভার পক্ষ থেকে আক্রান্ত এসব রোগীদেরকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা মনোবল চাঙা রাখতে কাজ করা হচ্ছে।

তিনি আক্রান্ত রোগী ও তাঁদের পরিবারের উদ্দেশ্যে বলেন, যারা আপনারা আক্রান্ত হচ্ছেন দয়া করে আপনারা হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকেন। এসময়ে খাওয়া দাওয়া সীমিত আকারে করেন। আর্থিক অস্বচ্ছলতা থাকলে ডাল ভাত খেয়েও রোগ যাতে নির্মূল হয় সে ব্যবস্থায় থাকুন। কারণ আপনি বাইরে বের হলে অন্যদের মাঝেও এই ছড়াতে পারে সেটা মনে রাখবেন।

মেয়র বলেন, আমরা যদি সচেতন না হই তাহলে রোগটি একসময় মহামারী আকারে বেড়ে যাবে। তাই সবাইকে সচেতন থাকতে হবে। মনে রাখবেন আপনারা সচেতন না হলে পৌরসভা, পুলিশ কেউই এই রোগ থেকে মুক্ত করতে পারবে না। পৌর নাগরিককে সচেতন করতে পৌর এলাকার প্রত্যেকটি ওয়াডে স্বেচ্ছাসেবী রয়েছে। আপনারা তাঁদের সাহায্য নিতে পারেন। তিনি উপস্থিত কাউন্সিলরকে অনুরোধ করেন, যারা স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে কাজ করতে চান তালিকা নাম দেওয়ার জন্য।

সভাপতির বক্তব্যে কাউন্সিলর আসাদ হোসেন মক্কু বলেন, এই রোগটি প্রকাশ পাওয়ার পর থেকে আমি আমার ওয়াডের নাগরিকের পাশে সারাক্ষণ কাজ করছি। আপনারা যেকোন সহযোগিতার জন্য আমার কাছে আসতে পারেন। তিনি সবাইকে সচেতন থেকে এই রোগ থেকে মুক্ত থাকতে আহবান জানান।

সভায় বড়বাড়ি মসজিদের পেশ ইমাম মাসুক মিয়া, আলাউর রহমান টিপুসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।