ইন্দুরকানী বাজারে রাস্তা না যেন নদী

Tuesday, July 7th, 2020


ইন্দুরকানী(পিরোজপুর) প্রতিনিধি ঃ  পিরোজপুরের ইন্দুরকানী উপজেলা সদর বাজারে রাস্তা না যেন নদীর পরিনত হয়ে থাকে। দূর্ভোগ পোয়াতে হচ্ছে বাজারে ব্যবসায়ী ও সাধারন জনগণ । বাজারে ড্রেন ও রাস্তা সংস্কার না করায় জলাবদ্ধতায় থাকতে হয় এ বাজরে ব্যবসায়ীদের। উপজেলার প্রানকেন্দ্রে অবস্থিত এই বাজারে সপ্তাহে দুইদিন হাট বসে এখানে প্রায় প্রতিদিনই হাজার হাজার লোকের সমাগম হয় কিন্তু সামান্য বৃষ্টিতেই জলাবদ্ধতা এমন হয় যেন বাজারটির মধ্য থেকে ছোট ছোট খালে পরিনত হয়। বাজারটি আয়াতনে বড় হওয়ায় বাজারের আনাচে কানাচে সরকারি-বেসরকারি ব্যাংক-বীমা সহ বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি অফিস রয়েছে। উপজেলার সকল মানুষের প্রয়োজীয় চাহিদা সহ নিত্য প্রয়োজনীয় পন্যের চাহিদা পাইকারি সেল এ বাজারেই হয়ে থাকে। বাজার সংলগ্ন ইন্দুরকানী থানা,সাব-রেজিস্ট্রি অফিস সহ ১টি মডেল প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ২টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় আছে। পাশর্^বর্তী উপজেলা মোরেলগঞ্জ এর দূরবর্তী ইউনিয়ন চিংড়াখালী,চন্ডিপুর গ্রামের ইন্দুরকানী বাজার সংলগ্ন হওয়ায় ওই এলাকার সাধারণ জনগন ও স্কুল,কলেজ পড়–য়া ছাত্র/ছাত্রীরা প্রতিদিনই যাতায়াত সহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি সংগ্রহ করে। বাজার থেকে প্রতিবছর লক্ষ লক্ষ টাকা রাজস্ব আদায় হয় কিন্তু বাজারে উন্নয়নের কোন ছোয়া পরে না দুর্নীতির কারনে। প্রায় ৫বছর আগে বাজারটিতে ড্রেন তৈরি সহ বাজার উন্নয়ন কাজ করার জন্য বরাদ্দ হলেও অদ্যবধি সে ড্রেন নির্মান করা (আগেই নির্মানের টাকা উত্তোলন করে নেয়) আর ড্রেন নির্মান হয়নি। অপরদিকে বাজারে সড়কগুলো সংস্কারের অভাবে বিভিন্ন স্থানে বড় বড় গর্ত হয়ে পড়েছে।
বাজার কমিটির সভাপতি জহিরুল ইসলাম জানান, বাজারে টোল ঘর, মাছ-মাংস-তরকারি নির্দিষ্ট ঘরসহ একটি সৌচাগার নির্মানের জন্য প্রায় ৬১লক্ষ টাকা বরাদ্দ হলেও বছরে পর বছর অনিয়ম দূর্নিতীর কারনে কাজ সম্পন্ন হচ্ছে না এ যেন দেখার কেউ নাই। আমরা জনপ্রতিনিধি সহ সরকারি কর্মকর্তাদের বার বার অনুরোধ করা সত্ত্বেও বিভিন্ন অযুহাতে বাজারে কোন উন্নয়ন হচ্ছে না।
এ বিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড মতিউর রহমান জানান, উপজেলা সদরের এই বাজারটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ । বাজারটি উন্নয়ন করা দরকার, বরাদ্দ পেলে উন্নয়ন করা হবে।