ইন্দুরকানীতে বৃদ্ধার রহস্যজনক মৃত্যু

Tuesday, July 28th, 2020


ইন্দুরকানী (পিরোজপুর) প্রতিনিধি ঃ ইন্দুরকানীতে এক বৃদ্ধার রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। সোমবার রাতে উপজেলার চরনি পত্তাশী গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত স্কুল শিক্ষক মধু সুদন হালদারের বাড়ি থেকে তার স্ত্রী গোলাপি রানী হালদারের (৬৫) মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। মধু সুদন হালদার জানান, সোমবার বিকালে তিনি পাশের গ্রামের হাটে গিয়ে ছিলেন। এসময় স্ত্রী বাড়িতে একাই ছিলেন। হাট থেকে সন্ধ্যায় বাড়ি ফিরে ঘরের দ্বিতীয় তলায় গোলাপি রানীর বিবস্ত্র মরদেহ দেখতে পায়। এসময় তার মাথা, গলা ও মুখে আঘাতের চিহ্নও দেখতে পান তিনি। এছাড়া গোলাপি রানীর গলায় থাকা এক ভরি ওজনের একটি স্বর্নের চেইন ও কান বালা তার সাথে পাওয়া যায় না। ঘরের একটি ড্রয়ার ও সুটকেস ভাঙ্গা পাওয়া যায়। মধু সুদন দাবী করেন তার স্ত্রীকে হত্যা করা হয়েছে। মধু সুদনের এক ছেলে মানিক হালদার আমেরিকার নাগরিক। এছাড়া দুই মেয়ে রয়েছে। তারা শ^শুর বাড়িতে থাকেন।
ইন্দুরকানী থানার ওসি হাবিবুর রহমান জানান, আমরা রাতেই খবর পেয়ে গোলাপি রানীর মরদেহ তার বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছি। তার মাথায় ও মুখে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। মঙ্গলবার মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদন পেয়েই আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করব।