Logo
শিরোনাম

যেসব কারণে নিষিদ্ধ হতে পারে হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২২ মার্চ 20২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২০ মে ২০22 | ১১৭জন দেখেছেন
Image

বর্তমানে ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপের জনপ্রিয়তা সবচেয়ে বেশি। দিন দিন বেড়েই চলেছে এর ব্যবহারকারীর সংখ্যা। প্রতিনিয়তই আপডেট হচ্ছে এই সাইটটি। এতে গ্রাহকদেরও আকর্ষণ বাড়ছে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে।

তবে যে কোনো সময় আপনার অ্যাকাউন্ট নিষিদ্ধ হতে পারে। অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়ই? হ্যাঁ, বিশেষজ্ঞদের অনেকেই বলছেন, সামান্য অসতর্ক হলেও ব্যান অর্থাৎ নিষিদ্ধ হতে পারে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট।

বিশ্বের যেকোনো প্রান্তে থাকা মানুষের সঙ্গে ভয়েস কল হোক বা ভিডিও কল, নিমেষে যোগাযোগ করা সম্ভব এই অ্যাপের মাধ্যমে। অফিস ও ব্যক্তিগত প্রয়োজনে ব্যবহার করছেন হোয়াটসঅ্যাপ। এখন আপনার জরুরি হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট যদি আচমকা বন্ধ হয়ে যায় বা নিষিদ্ধ হয়, তাহলে সত্যিই খুব মুশকিলের ব্যাপার। তাই আগে থাকতেই সতর্ক হোন।

জেনে রাখুন যেসব কারণে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট নিষিদ্ধ হতে পারে-
> স্প্যাম হিসেবে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করবেন না। লাগাতার এটা করলে সমস্যা হতে পারে। স্প্যাম হল গ্রুপ তৈরি করে নাগাড়ে মেসেজ পাঠানোর প্রক্রিয়া।

> একদিনেরও কম সময়ের মধ্যে যদি ব্যবহারকারী একাধিকবার ব্যান হন তাহলে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ ওই ব্যবহারকারীর হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট ডি-অ্যাক্টিভেট করে দিতে পারে।

> বিভিন্ন গ্রুপে ভুয়া ও মিথ্যা খবর ছড়ানো অবিলম্বে বন্ধ করুন। এর জেরেও নিষিদ্ধ হতে পারে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট।

> কোনো ধরনের বেআইনি, আপত্তিকর, হিংসাত্মক, হুমকি বিষয়ক জিনিস হোয়াটসঅ্যাপে কাউকে পাঠাবেন না। এর ফলে আপনার অ্যাকাউন্টের বিরুদ্ধে রিপোর্ট করতে পারেন অন্য ইউজার। আর তার জেরে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট ব্যান হরে পারে।

> অ্যানড্রয়েড ফোনে এপিকে ফাইলের রূপে ম্যালওয়্যার ডাউনলোড করবেন না।

> যে লিঙ্ক দেখে মনে সন্দেহ জাগবে সেই লিঙ্কও হোয়াটসঅ্যাপে ফরওয়ার্ড না করাই ভালো।

> যদি হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ টের পান যে আপনি অন্য কারো হয়ে অ্যাকাউন্ট খুলেছেন বা অন্য কারো অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করেন, তাহলে অবধারিত নিষিদ্ধ হবে অ্যাকাউন্ট।

> যদি অন্যরা আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্টের বিরুদ্ধে রিপোর্ট করেন, তাহলে আপনার অ্যাকাউন্ট ব্যান করবে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ।

> বিভিন্ন থার্ড পার্টি হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাপ যেমন হোয়াটসঅ্যাপ ডেল্টা, হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস, জিবিহোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করলে চিরতরে নিষিদ্ধ হতে পারে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট।

সূত্র: হিন্দুস্থান টাইমস


আরও খবর



ব্যবসায় উন্নতির দক্ষতা অর্জনে দ. কোরিয়ার সহযোগিতা চাইলেন মোমেন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ৪৭জন দেখেছেন
Image

 

ব্যবসায় উন্নতি করতে দক্ষতা অর্জনের জন্য দক্ষিণ কোরিয়ার সহায়তা চেয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

বৃহস্পতিবার (১২ মে) ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে ‘বাংলাদেশ-কোরিয়া সম্পর্কের ৫০ বছর’ শীর্ষক এক সেমিনারে মন্ত্রী এ সহায়তা কামনা করেন। সেমিনারে সহযোগিতার বিভিন্ন ক্ষেত্রে কোরিয়া-বাংলাদেশ সম্পর্কের অতীত, বর্তমান ও ভবিষ্যৎ নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমীক্ষা প্রদর্শন ও আলোচনা করা হয়।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশে দক্ষিণ কোরিয়ার রাষ্ট্রদূত লি জাং-কেউন এবং দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত দেলোয়ার হোসেন।

দক্ষিণ কোরিয়া বর্তমানে ব্যবসায়ের সূচকে চতুর্থ স্থানে রয়েছে। বাংলাদেশ এই সূচকে অগ্রগতি অর্জনে আরও বিদেশি বিনিয়োগ আকর্ষণের চেষ্টা চালাচ্ছে।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ ও দক্ষিণ কোরিয়ার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের ৫০ বছর উদযাপনের এই লগ্নে দক্ষিণ কোরিয়ার বন্ধুরা আমাদের জানাতে পারেন যে আমরা সহজে ব্যবসায় কীভাবে আরও ভালো করতে পারি।

যথাসময়ে উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ শেষ করার বিষয়ে সিউল যেন ঢাকার সঙ্গে এতদসংক্রান্ত জ্ঞান বিনিময় করে, সেই আহ্বানও জানান মন্ত্রী।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী দুর্দশাগ্রস্ত রোহিঙ্গাদের জন্য দক্ষিণ কোরিয়া সরকারের মানবিক সহায়তা এবং জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ফোরামে সহায়তার জন্য তাদের ধন্যবাদ জানান।

মিয়ানমারের সঙ্গে দক্ষিণ কোরিয়ার খুব ভালো সম্পর্ক আছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গারা যেন দ্রুত মিয়ানমারে তাদের স্বদেশে ফিরে যেতে পারে, সেজন্য সক্রিয় পদক্ষেপ নিতে দক্ষিণ কোরিয়াকে আরও উদ্যোগী হওয়ার আহ্বান জানাই।

দেড় বিলিয়ন ডলারের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যিক সম্পর্কে থাকা দক্ষিণ কোরিয়া বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান বাণিজ্যিক অংশীদার উল্লেখ করে মোমেন বলেন, বাংলাদেশ দক্ষিণ কোরিয়ার সহজ ঋণের সবচেয়ে বড় গ্রহীতাদের একটি


আরও খবর



টাঙ্গাইলে মাটি চাপা পড়ে দুই শ্রমিক নিহত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১০ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ২৯জন দেখেছেন
Image

টাঙ্গাইল পৌর শহরের আশেকপুরে একটি নির্মাণাধীন ভবনে সেপটিক ট্যাংকের জন্য কূপ খননের সময় মাটি চাপা পড়ে দুই শ্রমিক নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার (১০ মে) দুপুরে পৌর এলাকার আশেকপুর ইন্দিরাপাড়া এলাকায় জোবায়দা উচ্চ বিদ্যালয়ের পূর্বপাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

Kill-(3).jpg

নিহত শ্রমিকরা হলেন-জেলার বাসাইল উপজেলার কাশিল ইউনিয়নের পালপাড়া এলাকার অনাথ পালের ছেলে অখিল পাল (৪০)ও ঝুটুপালের ছেলে আনন্দ পাল (৫৫) ।

স্থানীয়রা জানান, সকালে একটি নির্মাণাধীন ভবনের সেপটিক ট্যাংকের জন্য কূপ খননের কাজ করছিলেন অখিলপাল ও আনন্দ পাল। ১২-১৩ ফুট খনন হয়ে গেলে কূপের চারপাশ থেকে মাটি পড়ে যায়। এ সময় মাটির নিচে চাপা পড়েন তারা দুজন। এ ঘটনায় স্থানীয় লোকজন ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেন। পরে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন এসে ভেকু দিয়ে মাটি সরিয়ে দুজনের মরদেহ উদ্ধার করেন।

Kill-(3).jpg

টাঙ্গাইল ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম জানান, কূপের গভীরতা বেশি হওয়ায় ভেকু মেশিন দিয়ে মাটি সরিয়ে মরদেহ দুটি উদ্ধার করা হয়।


আরও খবর



সংক্ষিপ্ত বিশ্ব সংবাদ: ১৬ মে ২০২২

প্রকাশিত:সোমবার ১৬ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২০ মে ২০22 | ৩৪জন দেখেছেন
Image

আমাদের চারপাশে অসংখ্য ঘটনা ঘটছে প্রতিদিনই। এর মধ্যে হয়তো আলোচনায় আসে হাতেগোনা কিছু। তবে সময় ও পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে বেশকিছু বিষয়। এগুলো জানা না থাকলে অনেক ক্ষেত্রেই পিছিয়ে পড়তে হয়। এ কারণে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ঘটে যাওয়া নানা ঘটনা থেকে সংক্ষেপে গুরুত্বপূর্ণ কিছু সংবাদ থাকছে জাগো নিউজের পাঠকদের জন্য-

ইন্দোনেশিয়ায় পামের দাম ‘অর্ধেক’, মাথায় হাত চাষিদের
পাম অয়েল রপ্তানি নিষিদ্ধ করে বেশ বিপাকেই পড়েছে ইন্দোনেশীয় সরকার! রপ্তানি আয় কমে গেছে, মজুত সক্ষমতাও পূরণ হওয়ার পথে। তার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের দুই সপ্তাহ যেতে না যেতেই স্থানীয় বাজারে পাম ফলের দাম নেমে গেছে প্রায় অর্ধেকে। হঠাৎ উপার্জনে ধস নামায় মাথায় হাত দেশটির পাম চাষিদের। তারা যত দ্রুত সম্ভব পাম অয়েলে রপ্তানি নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন। স্থানীয় বাজারে মূল্য নিয়ন্ত্রণের কথা বলে গত এপ্রিল মাসের শেষের দিকে পাম অয়েল রপ্তানি নিষিদ্ধ করেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। কিন্তু তার এ সিদ্ধান্ত বাজার স্থিতিশীল করার বদলে স্থানীয় পাম চাষিদের জন্য নতুন বিপদ ডেকে এনেছে।

গম রপ্তানি বন্ধ ভারতের, বিশ্ববাজারে দাম বাড়লো ৬ শতাংশ
ভারত গম রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করার পর আন্তর্জাতিক বাজারে সোমবার (১৬ মে) গমের দাম সর্বোচ্চ পরিমাণে বেড়েছে। বিশ্বব্যাপী সরবরাহ হ্রাস পাওয়ায় খাদ্য ব্যয়ের ওপর এক ধরনের চাপ সৃষ্টি হয়েছে। বিশ্বে গম কেনাবেচার অন্যতম বড় কেন্দ্র যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগোর বাজারে গমের মূল্যসূচক ৫ দশমিক ৯ শতাংশ বেড়েছে, যা গত দুই মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ। এমনিতেই রাশিয়ার ইউক্রেন আগ্রাসনের ফলে চলতি বছর গমের দাম ৬০ শতাংশের বেশি বেড়েছে। ইউরোপের এই দুই দেশ বিশ্বের গম রপ্তানির এক-তৃতীয়াংশ সরবরাহ করে।

ইমরান খানের নিরাপত্তা জোরদারের নির্দেশ
সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফের (পিটিআই) চেয়ারম্যান ইমরান খানের নিরাপত্তা জোরদারে সংশিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নিদের্শ দিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ। সম্প্রতি ইমরান খান অভিযোগ করেন, জীবননাশের হুমকির মুখে রয়েছেন তিনি। দেশটির রাষ্ট্রীয় রেডিও চ্যানেল রেডিও পাকিস্তানের তথ্য অনুযায়ী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রানা সানাউল্লাহ ইমরান খানের নিরাপত্তা ব্যবস্থা সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফকে অবহিত করেন। পরে প্রধানমন্ত্রী পিটিআই প্রধানকে ‘সর্বোচ্চ নিরাপত্তা’ প্রদানের জন্য নির্দেশ দেন।

শ্রীলঙ্কায় সহিংসতার ঘটনায় আটক ৪০০, ফের কারফিউ জারি
শ্রীলঙ্কায় সম্প্রতি সহিংস ঘটনার জেরে সন্দেহভাজন হিসেবে চারশ’র মতো মানুষকে আটক করা হয়েছে। দেশটির পুলিশ জানিয়েছে, রোববার (১৫ মে) আরও ১৫৯ জনকে আটক করা হয়। গ্যালা ফেইস গ্রিন ও কোল্লুপিতিয়াসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে সহিংস ঘটনার জেরে এখন পর্যন্ত ৩৯৮ জনকে আটক করা হলো। দেশটির পুলিশের মুখপাত্র এএসপি নিহাল থালদুওয়া জানান, রোববার সন্দেহভাজন হিসেবে বেশ কয়েকজনকে আটক করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে ৯ মে থেকে কারফিউ লঙ্ঘন, সরকারি-বেসরকারি সম্পদ ধ্বংস ও লুট করার অভিযোগ আনা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

ভারতের সঙ্গে চুক্তি, নিজেদের প্রকল্প থেকে ৭৮% বিদ্যুৎ কিনবে নেপাল
ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেপাল সফরকালে সোমবার (১৬ মে) দুই দেশের মধ্যে ছয়টি সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো পূর্ব নেপালের সাঙ্খুওয়াসভায় নির্মিতব্য অরুণ-৪ জলবিদ্যুৎ প্রকল্প। চুক্তি অনুসারে, যৌথ বিনিয়োগের এ প্রকল্প থেকে ২১ শতাংশ বিদ্যুৎ বিনামূল্যে পাবে নেপাল। অরুণ-৪ জলবিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্য নেপালের বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ (এনইএ), ভারত সরকার এবং হিমাচল সরকারের সহযোগী সংস্থা সুতলেজ জলবিদ্যুৎ নিগমের (এসজেভিএন) মধ্যে একটি চুক্তি হয়েছে। চুক্তিতে সই করেছেন এনইএ’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক কুলমান ঘিসিং এবং এসজেভিএনের চেয়ারম্যান নন্দলাল শর্মা।

দেশে ফিরতে চান পি কে হালদার
বাংলাদেশ থেকে সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করে পালিয়ে যাওয়া প্রশান্ত কুমার হালদার (পি কে হালদার) দেশে ফিরতে চান। মেডিকেল চেকআপ শেষে ভারতের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি) দপ্তর থেকে ফেরার পথে সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি। পি কে হালদারকে মঙ্গলবার (১৭ মে) আদালতে পেশ করা হবে। তাই সোমবার (১৬ মে) ফের মেডিকেল চেকআপ করতে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল তাকে।

নেপাল সফরে নরেন্দ্র মোদী
চার দিনের সফরে সোমবার (১৬ মে) নেপালে পৌঁছেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ২০২০ সালে সীমান্ত বিরোধের কারণে দু'দেশের সম্পর্কে কিছুটা ছেদ পড়ে। ধারণা করা হচ্ছে, সেই সম্পর্ক মেরামত করতেই নরেন্দ্র মোদীর এ সফর। জানা গেছে, বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে লুম্বিনিতে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী। বৌদ্ধ ধর্মের প্রবর্তক গৌতম বুদ্ধের জন্ম হয়েছিল বলে বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের কাছে পবিত্রতম স্থানগুলোর মধ্যে একটি এই লুম্বিনি।

ইউক্রেন সীমান্তে বিশেষ বাহিনী মোতায়েন করবে বেলারুশ
ইউক্রেন সীমান্তে বিশেষ বাহিনী মোতায়েনের ঘোষণা দিয়েছে বেলারুশ। যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় তাদের সর্বশেষ গোয়েন্দা বার্তায় এ তথ্য জানিয়েছে বলে বিবিসির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে। দেশের পশ্চিমে প্রশিক্ষণ রেঞ্জে বিমান প্রতিরক্ষা, আর্টিলারি এবং ক্ষেপণাস্ত্র ইউনিট মোতায়েন করা হবে বলেও জানানো হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রে সন্ত্রাসীদের দৌরাত্ম্য বৃদ্ধি, প্রকট বর্ণবাদ
যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ার একটি গির্জায় রোববার (১৫ মে) একাধিক গুলির ঘটনায় অন্তত একজন নিহত ও পাঁচজন আহত হয়েছেন। দেশটির নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যের বাফেলো শহরের একটি মুদি দোকানে একজন শ্বেতাঙ্গ বন্দুকধারী ১০ জনকে হত্যা করার ঠিক একদিন পরই এমন খবর সামনে আসে। ১৮ বছর বয়সী সন্দেহভাজন এক তরুণ ওই হত্যাকাণ্ড সরাসরি সম্প্রচার করে। এ সময় মোট ১৩ জনকে গুলি করা হয়। তাদের মধ্যে ১১ জন কৃষ্ণাঙ্গ ও দুইজন শ্বেতাঙ্গ। বর্ণবাদে উৎসাহী হয়ে এ হত্যাকাণ্ড চালানো হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এক বিবৃতিতে জানান, ঘৃণ্য শ্বেতাঙ্গ উগ্র জাতীয়তাবাদের নামে বিশেষ করে অভ্যন্তরীণ যেকোনো সন্ত্রাসবাদী কার্যক্রম আমাদের নীতি বিরুদ্ধ।

ইন্দোনেশিয়ায় বাসচালকের ‘ঘুম’ প্রাণ নিলো ১৪ পর্যটকের
ইন্দোনেশিয়ার জনপ্রিয় পর্যটনকেন্দ্র জাভা দ্বীপে বিলবোর্ডের সঙ্গে পর্যটকবাহী একটি বাসের ধাক্কায় প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত ১৪ জন। গুরুতর আহত আরও ১৯ পর্যটক। তাৎক্ষণিকভাবে দুর্ঘটনার কারণ নিশ্চিত না হলেও অভিযোগ উঠেছে, ওই সময় তন্দ্রাচ্ছন্ন ছিলেন বাসের চালক। পূর্ব জাভার ট্রাফিক পুলিশ প্রধান লতিফ উসমান জানিয়েছেন, সোমবার (১৬ মে) প্রাদেশিক রাজধানী সুরাবায়া থেকে ইন্দোনেশীয় পর্যটক বহনকারী বাসটি মধ্য জাভার ডিয়াং মালভূমি থেকে ফিরছিল। পথিমধ্যে মোজোকারতো টোল রোডে একটি বিলবোর্ডে ধাক্কা দেয় সেটি।


আরও খবর



ডিসিদের মাধ্যমে প্রকল্প তদারকির নির্দেশনা স্থগিত

প্রকাশিত:বুধবার ১১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৮ মে ২০২২ | ২৬জন দেখেছেন
Image

মাঠ পর্যায়ে জেলা প্রশাসকের (ডিসি) অফিসের মাধ্যমে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিভুক্ত (এডিপি) প্রকল্প তদারকির নির্দেশনা সংশ্লিষ্ট চিঠিটি স্থগিত করা হয়েছে।

সম্প্রতি সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেনের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়। সভার কার্যবিবরণী থেকে এ তথ্য জানা গেছে। একই সঙ্গে প্রকল্প তদারকির জন্য জেলা প্রশাসকদের আহ্বায়ক ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসককে (উন্নয়ন ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা) সদস্য সচিব করে বিভিন্ন দপ্তরের তিনজন নির্বাহী প্রকৌশলীকে নিয়ে ৫ সদস্যের আরেকটি কমিটি গঠনের সিদ্ধান্তও হয় সভায়।

গত ১৮ জানুয়ারি এক চিঠিতে জেলা প্রশাসকদের (ডিসি) মাঠ পর্যায়ে এডিপিভুক্ত প্রকল্পগুলো অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকের (উন্নয়ন ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা) মাধ্যমে পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়নের নির্দেশনা দেয় জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

এ নির্দেশনা জারির পর প্রকৌশলীদের সংগঠন জেলা প্রশাসনের মাধ্যমে প্রকল্প পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়নের বিষয়ে আপত্তি তোলে। সংবাদ সম্মেলন করে এ নির্দেশনা বাতিল না হলে আন্দোলনেরও হুমকি দিয়ে আসছিলেন প্রকৌশলীরা।

এ প্রেক্ষাপটে প্রকৌশলী, আইএমইডিসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে গত ১৫ মার্চ সভায় বসেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী। তবে জেলা প্রশাসকের নেতৃত্বে গঠন করা নতুন কমিটিকেও ভালোভাবে নিচ্ছেন না প্রকৌশলীরা।

নতুন সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার (১০ মে) ইনস্টিটিউট অব ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশের প্রকৌশলীরা বৈঠকে বসেছিলেন। তাদের বৈঠকের সিদ্ধান্ত দু'একদিনের জানিয়ে দেবেন বলে জানা গেছে।

প্রকৌশলীরা জানিয়েছেন, কমিটিতে ডিসি আহ্বায়ক হতে পারেন, তবে সদস্য সচিব রাখতে হবে সংশ্লিষ্ট নির্বাহী প্রকৌশলীকে।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে আয়োজিত সভায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন, বাংলাদেশ'র (আইইবি) সভাপতি প্রকৌশলী মো. নূরুল হুদা বলেন, এত দিন (প্রায় ৫০ বছর) সারাদেশে চলমান প্রকল্পগুলো বাস্তবায়নকারী সংস্থার ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ মাধ্যমে তদারকি এবং আইএমইডি মাধ্যমে পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন হয়ে আসছে। যে কারণে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে জেলা প্রশাসন কর্তৃক প্রকল্প পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন সংক্রান্ত পত্র জারি হওয়ার পর সারাদেশের প্রকৌশলীদের মধ্যে এক ধরনের অসন্তোষ বিরাজ করছে।’

ওই সভায় জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘আইএমইডি যেহেতু সরাসরি সব প্রকল্প পরিদর্শন করা সম্ভব হয় না, সেহেতু জেলা প্রশাসনের মাধ্যমে প্রকল্প পরিদর্শনের সিদ্ধান্ত সঠিক প্রতীয়মান হয়। তবে প্রকৌশলীদের পেশাজীবী সংগঠন এবং বিভিন্ন প্রকৌশল দপ্তর/অধিদপ্তর এ বিষয়ে আপত্তি উত্থাপন করায় সমন্বয়ের স্বার্থে জেলা প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে জেলার প্রকৌশল দপ্তরের কর্মকর্তাদের নিয়ে যৌথ টিম গঠনের মাধ্যমে প্রকল্প পরিদর্শনের বিষয় বিবেচনা করা যায়।’

এরপর জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কে এম আলী আজম বলেন, জেলা প্রশাসককে আহ্বায়ক করে জেলার অন্যান্য প্রকৌশল দপ্তরের প্রকৌশলীদের সমন্বয়ে একটি কমিটি গঠন করে প্রকল্প পরিদর্শন করা হলে কমিটির পর্যবেক্ষণের আলোকে আইএমইডি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পারবে।


আরও খবর



নোয়াখালীতে শিশু অপহরণ, মা-ছেলে গ্রেফতার

প্রকাশিত:সোমবার ০২ মে 2০২2 | হালনাগাদ:বুধবার ১৮ মে ২০২২ | ৪৭জন দেখেছেন
Image

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে মুক্তিপণের দাবিতে মো. সামির ইসলাম ছিদ্দিক (৭) নামে এক শিশুকে অপহরণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় শিশুটিকে উদ্ধার ও অভিযুক্ত মো. হৃদয় (১৫) ও তার মা বিউটি আক্তারকে (৩৮) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

রোববার (১ মে) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে বজরা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের পূর্ব চাঁদপুর গ্রামের হাজী মনোহর আলী চৌধুরীর বাড়িতে অপহরণের ঘটনা ঘটে।

গ্রেফতার মো. হৃদয় সোনাইমুড়ী উপজেলার পূর্ব চাঁদপুর গ্রামের হামিদ উল্যা মুন্সির পুরাতন বাড়ির মো. নূরনবীর ছেলে ও বিউটি আক্তার আসামি মো. হৃদয়ের মা।

পুলিশ জানায়, পূর্ব চাঁদপুর গ্রামের মো. মমিন উল্যাহর ছেলে সাত বছরের শিশু মো. সামির ইসলাম ছিদ্দিককে রোববার সন্ধ্যায় ৫০ টাকা দেওয়ার প্রলোভন দিয়ে মুক্তিপণের আশায় আসামি মো. হৃদয় ও তার সহযোগীরা বাড়ির পাশের বিলের মধ্যে আটক করে রাখে।

পরে ছেলের মায়ের কাছ থেকে মুক্তিপণ আদায়ের জন্য দুটি বিকাশ নম্বর পাঠানো হয়। বিষয়টি থানায় অভিযোগ দেওয়ার পর রাতেই অভিযান চালিয়ে অপহৃত শিশু উদ্ধার ও আসামি মা-ছেলেকে গ্রেফতার করা হয়।

সোনাইমুড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হারুনুর রশিদ জাগো নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় শিশুটির দাদার দায়ের করা অভিযোগটি অপহরণ মামলা (নম্বর-২) হিসেবে রুজু করা হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত। গ্রেফতারদের সোমবার আদালতে সোপর্দ করা হবে।


আরও খবর